লিখুন
ফলো

আমাদের নতুন খবর গুলো পেতে এখনি সাইন আপ করুন

দূরত্ব মাপতে আলােকবর্ষ কেন প্রয়োজন হলো?

মহাকাশ বিজ্ঞানে এক অতি প্রয়ােজনীয় একক হল আলােকবর্ষ। সাবধান! শেষে বর্ষ শব্দ দেখে একে সময়ের একক মনে করবেন না যেন! এটি আসলে দূরত্বের একক। এর মানে কী?

আলােকবর্ষ
আলোর গতি নিয়ে রয়েছে বিজ্ঞানীদের মধ্যে মতবিরোধ; image: wikipedia

আলাে এক বছরে যে দূরত্ব অতিক্রম করে তাকে বলা হয় এক আলােকবর্ষ। আলাে যেখানে প্রতি সেকেন্ডেই ৩ লক্ষ কিলােমিটার (১ লক্ষ ৮৬ হাজার মাইল) পথ অতিক্রম করে, সেখানে এক বছরে কত দূর যাবে ভাবতেই নিজেকে খুব ছােট্ট ছােট্ট লাগে, তাই না? চলুন দেখা যাক, এর প্রয়ােজন কেন হলাে, এই মান আসলে কত বিশাল। আর আসলে কী কাজেই বা লাগে এটি।

আলােকবর্ষ এককটির প্রয়ােজন হল কেন?

মহাজাগতিক বস্তুসমূহ এবং তাদের মধ্যকার দূরত এত বিশাল যে আমাদের সাধারণ এসআই (SI) একক মিটার এমনকি কিলােমিটারও সেখানে কোণঠাসা। প্রয়ােজন আরও অনেক বড় এককের। যেমন আমাদের প্রতিবেশী গ্যালাক্সিদের মধ্যে সবচেয়ে বড় অ্যান্ড্রোমিডার দূরত্ব যদি আপনি এসআই একক দিয়ে মাপতে চান, তাহলে তা হবে 2.4×10^22 মিটার। এত বড় মান এসআই এককে লিখতে গেলে অঙ্কটি যেমন বড় হয়ে যায়, তেমনি এর মানে বােঝাও হয়ে দাঁড়ায় কঠিন।

image: random image

তাই জ্যোতির্বিদ্যায় অন্যান্য এককের পাশাপাশি আলােকবর্ষ এককটি ব্যবহার করা হয়। সাধারণত নিকটবর্তী নক্ষত্রদের এবং ছায়াপথের দূরত্ব বের করতে এই এককটি ব্যবহার করা হয়।



এখন, এই এককে হিসাব করলে দেখা যায়, আমাদের সৌরজগত যে গ্যালাক্সিতে অবস্থিত (মিল্কিওয়ে) তার ব্যাস প্রায় ১ লাখ আলােকবর্ষ। তার মানে আলাের বেগেও যদি রওয়ানা দেওয়া যেত, তবে গ্যালাক্সিটির এক পাশ থেকে অপর পাশে যেতে ১ লাখ বছর সময় লাগত। আমাদের প্রতিবেশী গ্যালাক্সি অ্যান্ড্রোমিডার দূরত্ব প্রায় ২.৫ লাখ ও ব্যাস ২ লাখ বিশ হাজার আলােকবর্ষ।

ফলে, সহজে লেখাও যাচ্ছে, বিভিন্ন দূরত্বের তুলনাও করা যাচ্ছে। সৌরজগতের বাইরে বৃহত্তম গ্রহ ট্রেস-8 এর দূরত্ব পৃথিবী থেকে ১৪০০ আলােকবর্ষ দূরে।

আলােকবর্ষের মান কত?

আলােকবর্ষ হল সেই পরিমাণ দূরত্ব যা আলাে এক বছরে অতিক্রম করে। আমরা জানি, আলাের বেগ প্রতি সেকেন্ডে ৩x১০^৮ মিটার, মানে ৩ এর পরে ৮টি শুন্য দিলে যা হয়। মাইলের হিসাবে তা ১ লক্ষ ৮৬ হাজার।

গাণিতিক হিসাব তাহলে এ রকমঃ
১ আলােকবর্ষ = ১ বছরে আলাের অতিক্রান্ত পথ।
= ৩৬৫ দিনে আলাের অতিক্রান্ত পথ।
= ৩৬৫ x ২৪ ঘণ্টায় আলাের অতিক্রান্ত পথ
= ৩৬৫ x ২৪ x ৩৬০০ সেকেন্ডে আলাের অতিক্রান্ত পথ।
= ৩৬৫ x ২৪ x ৩৬০০ x ৩ x ১০^৮ মিটার।
= ৯.৪৬০৭x১০^১৫ মিটার।

অর্থাৎ ৯ ৪৬০ ৮০০ ০০০ ০০০ ০০০ মিটার।

এটি ৯ ট্রিলিয়ন কিলােমিটারের চেয়ে একটু বেশি বা প্রায় ৬ ট্রিলিয়ন মাইল।

image: getty image

জ্যোতির্বিদ্যায় আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ একক হলাে পারসেক। এটি আলােকবর্ষের চেয়ে বড়। এর মান ৩.২৬ আলােকবর্ষের সমান। অপেক্ষাকৃত ছােট দূরত্বের ক্ষেত্রে আবার আলােকবর্ষের পরিবর্তে আলােকমিনিট বা আলােকসেকেন্ড জাতীয় এককগুলাে ব্যবহার করা হয়। বােঝাই যাচ্ছে, আলাের এক মিনিটে অতিক্রান্ত দূরত্বই হচ্ছে আলােকমিনিট ইত্যাদি।



এই এককটি ব্যবহারের মাধ্যমে মহাজাগতিক
বিভিন্ন বস্তুর দূরত্বের তাৎপর্য এবং পারস্পরিক তুলনা খুব সহজে করা যায়। আগেই বলেছি, সাধারণত নিকটস্থ নক্ষত্র এবং ছায়াপথের দূরত্ব পরিমাপের ক্ষেত্রে এটি বেশি ব্যবহৃত হয়। এর কিছু ব্যবহার দেখা যাকঃ

১. এখন পর্যন্ত মানুষের পাঠানাে সবচেয়ে দূরবর্তী মহাকাশযান হচ্ছে ভয়েজার-১। ২০১৭ সালের এপ্রিল পর্যন্ত এর দূরত্ব ছিল ১৯ আলােকঘণ্টার ওপরে। বুঝতেই পারছেন, আলাে এক ঘণ্টায় যত দূর যাবে সেটাই আসলে এক আলােকঘণ্টা। বর্তমানে সূর্যের সাপেক্ষে যানটির বেগ সেকেন্ডে ১৭ কিলােমিটার (ঘন্টায় ৩৮ হাজার মাইল)। এই বেগ নিয়ে চলতে থাকলে যানটি আরাে প্রায় ১৭ হাজার ৫০০ বছর পরে ১ আলােকবর্ষ দূরত্বে পৌঁছবে। ২০১২ সালের আগস্টে এটি প্রথম কোনাে যান হিসেবে সৌরজগতের চৌহদ্দি পার হয়।

২. সৌরজগতের অন্যতম দূরবর্তী অঞ্চল উট ক্লাউডের ব্যাস প্রায় ২ আলােকবর্ষ।

৩. সূর্যের নিকটতম নক্ষত্র প্রক্সিমা সেন্টোরির দূরত্ব ৪.২২ আলােকবর্ষ।

৪. সূর্যের অভিকর্ষের সর্বোচ্চ পাল্লা ২ আলােকবর্ষ পর্যন্ত বিস্তৃত। এর বাইরে সূর্যের আধিপত্যে নাক গলায় আন্তঃনাক্ষত্রিক বস্তু।

৫. লুব্ধক আমাদের রাতের আকাশের সবচেয়ে উজ্জ্বল নক্ষত্র। এর দূরত্ব ৮.৬ আলােকবর্ষ।

আলোর গতি প্রতি সেকেন্ডে প্রায় ৩ লক্ষ কিলোমিটার; image: live science

৬. এইচডি ১০৭০০ ই (HD 10700 e) একটি সম্ভাব্য বাসযােগ্য বহির্গ্রহ (Exoplanet) । এর দূরত্ব ১১.৯ আলােকবর্ষ ।

আরো পড়ুনঃ

টেলিস্কোপ এবং তার ইতিকথা

স্টোন ফিশঃ ছোট্ট দেহে এতো বিষ

মঙ্গল গ্রহ এবং আরব আমিরাতের শহর নির্মাণের পরিকল্পনা

৭. প্লিজ ৫৮১ (Gliese 581) একটি লােহিত বামন নক্ষত্র । এর চারদিকে প্রদক্ষিণরত বেশ কিছু বাসযােগ্য গ্রহ পাওয়া গেছে। নক্ষত্রটির দূরত্ব ২০
আলােকবর্ষ।

৮. রাতের আকাশের ২য় উজ্জ্বল নক্ষত্র সুহাইল (Canopus)। এর দীপ্তি সূর্যের ১৫ হাজার গুণ । দূরত্বে এটি ৩১০ আলােকবর্ষ।

৯. আমাদের নিজস্ব গ্যালাক্সি মিল্কিওয়ের কেন্দ্র ২৬ হাজার আলােকবর্ষ দূরত্ব অবস্থিত।

১০. মিলিওয়ের নিজের ব্যাস প্রায় ১ লাখ আলােকবর্ষ।

১১. অ্যান্ড্রোমিডা গ্যালাক্সি প্রায় ২৫ লাখ আলােকবর্ষ দূরে অবস্থিত।

image: getty image

১২. খালি চোখে দৃশ্যমান এমন অন্যতম দূরবর্তী বস্তু হচ্ছে ট্রায়াঙ্গুলাম গ্যালাক্সি। এর
দূরত্ব ৩০ লাখ আলােকবর্ষ।



১৩. আমাদের নিকটতম গ্যালাক্সি ক্লাস্টার বা ছায়াপথ স্তবক ভার্গো ক্লাস্টারের দূরত্ব ৫ কোটি ৯০ লাখ আলােকবর্ষ।

১৪. ছায়াপথের দেয়াল স্লোয়ান গ্রেট ওয়ালের (Sloan Great Wall) দূরত্ব এক বিলিয়ন আলােকবর্ষ।

১৫. সবচেয়ে উজ্জ্বল কোয়াসার ৩সি ২৭৩ (3C 273)এর দূরত্ব ২.৪ বিলিয়ন আলােকবর্ষ।


This is a Bengali article. This article is about ‘why light years are used?’ Written about this.

Necessary references are hyperlinked inside the article.

Featured Image: Getty Image 

Total
28
Shares
Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

 
Previous Article

আলোর গতি এবং বিজ্ঞানীদের মতবিরোধ

Next Article

চা এর ইতিহাস

 
Related Posts
আরও পড়ুন

ব্লু অরিজিন : জেফ বেজোসের স্পেস ফ্লাইট কোম্পানি [পর্ব – ২]

১ম পর্ব ব্লু অরিজিনের পুনঃব্যবহারযোগ্য নিউ শেফার্ড সাবঅরবিটাল সিস্টেম  ব্লু অরিজিন একটি রকেট প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান এবং এখন তারা…
আরও পড়ুন

নেটফ্লিক্সের বিবর্তন : একটি ডিভিডি রেন্টাল কোম্পানি যেভাবে পরিণত হলো বিশ্বের জনপ্রিয়তম স্ট্রীমিং প্লাটফর্মে [পর্ব : ১]

আপনার যদি কোন তথ্য খোঁজার দরকার হয়, তাহলে আপনি সার্চ করেন গুগলে। কোমল পানীয় এর কথা ভাবলে বিশ্বব্যাপী…
আরও পড়ুন

মঙ্গল গ্রহে পানির খোঁজ

কিভাবে মঙ্গল গ্রহে থেকে কোটি কোটি বছর আগে পানি অপসারণ হয়েছে এটা একটা দীর্ঘদিনের রহস্য। বিজ্ঞানীরা এখন মনে…

আমাদের নিউজলেটার জন্য সাইন আপ করুন

আমাদের নতুন খবর গুলো পেতে এখনি সাইন আপ করুন

Sign Up for Our Newsletter